শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪
spot_img

বাংলাদেশের অধিনায়ক হতে প্রস্তুত নাজমুল

ইনজুরিতে থাকা নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের অনুপস্থিতিতে অস্থায়ী অধিনায়াক হিসেবে কাল বিশ^কাপের শেষ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিয়েছেন নাজমুল হাসান শান্ত। ভবিষ্যতে বাংলাদেশের অধিনায়ক হিসেবে নিজেকে প্রস্তুত দাবী করেছেন শান্ত।
২৫ বছর বয়সী শান্ত এবারের টুর্নামেন্টে দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিয়েছেন। গতকাল পুনেতে অস্ট্রেলিয়ার বিপকক্ষে ৮ উইকেটের পরাজয় দিয়ে বিশ^কাপ শেষ করেছে বাংলাদেশ।
ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে শান্ত বলেছেন, বিশ্বকাপ শেষে স্থায়ীভাবে অধিনায়কের দায়িত্ব দেওয়া হলে তিনি সেই দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত।
শ্রীলংকার বিপক্ষে ম্যাচে ব্যাটিংকালে বাম হাতের তর্জনীতে চোট পাওয়ায় সাকিবের বিশ^কাপ শেষ হয়ে যায়। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে শেষ ম্যাচে তাই আবারো অধিনায়কের দায়িত্ব পড়ে শান্তর কাঁধে।
অধিনায়কত্ব বিষয়ে নাজমুল বলেছেন, ‘আমি এ পর্যন্ত বেশ কয়েকবারই দলকে নেতৃত্ব দিয়েছি। ব্যক্তিগতভাবে আমি বলতে পারি বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দিতে আমি প্রস্তুত। সেই সুযোগ যদি পাই তবে অবশ্যই নিজেকে প্রমানে প্রস্তুত আছি। এটা যেহেতু আমার প্রথম বিশ^কাপ, এখান থেকে আমি অনেক কিছু শিখেছি। এই ধরনের পরিবেশে খেলতে পারার অভিজ্ঞতা নি:সন্দেহে আমাকে সহযোগিতা করবে।’
অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে এবারের টুর্নামেন্টে ৮ উইকেটে সর্বোচ্চ ৩০৬ রান সংগ্রহ করে বাংলাদেশ। কিন্তু তারপরও নয় ম্যাচে সপ্তম পরাজয় বরণ করতে বাধ্য হয় টাইগাররা। মিচেল মার্শের অপরাজিত ১৭৭ রান পাঁচবারের চ্যাম্পিয়নদের জয়কে সহজ করে দেয়।
তবে শান্ত (৪৫) ও মাহমুদুল্লাহ (৩২) উভয়ই মার্নাস লাবুশেনের রান আউটের শিকার না হলে ম্যাচের চিত্র হয়তো ভিন্ন হতে পারতো। ঐ সময় উভয় ব্যাটারই বেশ ছন্দে ছিলেন।
শান্ত বলেছেন, ‘ব্যাটিংয়ে দুটি রান আউটই আমাদের পিছিয়ে দিয়েছে। মিডল ওভারে আমরা ভাল বোলিং করতে পারিনি। সব মিলিয়ে আমি বলবো গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তে একটি দল হিসেবে আমরা খেলতে পারিনি। কিন্তু অস্ট্রেলিয়ার মত বিশ^মানের বোলিংয়ের বিপরীতে আমরা ৩০০র বেশী রান করেছি। দুটি রান আউটের শিকার না হলে মিডল ওভারে বড় পার্টনারশীপ গড়ে উঠতো। তাহলে দলীয় স্কোর হয়তো আরো বড় করতে পারতাম।’
তিনি আরো বলেন, ‘সব মিলিয়ে আমরা বিশ^কাপে একটি দল হিসেবে ভাল ক্রিকেট খেলতে পারিনি। আমাদের ব্যাটিং ও বোলিংয়ে আরো উন্নতি করতে হবে। কি ভুল হচ্ছে সেগুলো নিয়ে আরো কাজ করতে হবে।’

এই বিভাগের সব খবর

প্রাকৃতিক বিপর্যয় রোধে বৃক্ষরোপণের আহ্বান অর্থ প্রতিমন্ত্রীর

প্রাকৃতিক বিপর্যয় রোধ ও পরিবেশ রক্ষায় জনস্বার্থে বৃক্ষ রোপণ করতে সবার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী ওয়াসিকা আয়শা খান। ‘সবুজে সাজাই দেশ’ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে...

হজে গিয়ে ৬৪ বাংলাদেশির মৃত্যু

এ বছর হজ পালন করতে গিয়ে আরও একজন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে চলতি বছর বাংলাদেশি মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬৪ জনে। এর মধ্যে পুরুষ...

রাঙ্গুনিয়ায় ডেমি ছড়ায় হযরত তৈয়ব শাহ (র:) এর ওরশ অনুষ্ঠিত

রাঙ্গুনিয়া বেতাগী গাউছিয়া কমিটি বাংলাদেশ ডেমিছড়া শাখার উদ্যোগে পবিত্র শোহাদায়ে কারবালার স্বরণে হাফেজ ক্কারী হযরত সৈয়দ মুহাম্মদ তৈয়ব শাহ (র:) এর সালানা ওরশ মোবারক...

সর্বশেষ

প্রাকৃতিক বিপর্যয় রোধে বৃক্ষরোপণের আহ্বান অর্থ প্রতিমন্ত্রীর

প্রাকৃতিক বিপর্যয় রোধ ও পরিবেশ রক্ষায় জনস্বার্থে বৃক্ষ রোপণ...

হজে গিয়ে ৬৪ বাংলাদেশির মৃত্যু

এ বছর হজ পালন করতে গিয়ে আরও একজন বাংলাদেশির...

রাঙ্গুনিয়ায় ডেমি ছড়ায় হযরত তৈয়ব শাহ (র:) এর ওরশ অনুষ্ঠিত

রাঙ্গুনিয়া বেতাগী গাউছিয়া কমিটি বাংলাদেশ ডেমিছড়া শাখার উদ্যোগে পবিত্র...

শিক্ষার্থীদের পুঁজি করে রাষ্ট্রকে অস্থির করার ষড়যন্ত্র হচ্ছে : কাদের

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, কোমলমতি শিক্ষার্থীদের পুঁজি...

খাগড়াছড়ির রামগড়ের পাতাছড়া গণহত্যায় জড়িতদের শাস্তির দাবি

১৯৮৬ সালের ১৩ জুলাই, তৎকালীন শান্তিবাহিনী কর্তৃক খাগড়াছড়ি পার্বত...

জলাবদ্ধতার কারণ অনুসন্ধানে বাকলিয়ায় সিডিএ চেয়ারম্যান

চট্টগ্রাম নগরীর সবচেয়ে জলাবদ্ধতা-প্রবণ এলাকা হিসেবে চিহ্নিত ১৯ নং...