বিডা’র সাথে চিটাগাং চেম্বারের সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরঃ

ওয়ান স্টপ সার্ভিসের মাধ্যমে পাওয়া যাবে চেম্বারের সদস্য এবং সি.ও সেবা

 নিজস্ব প্রতিবেদক |  সোমবার, আগস্ট ৩০, ২০২১ |  ৯:৩৪ অপরাহ্ণ
       

বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিডা) ও দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি (সিসিসিআই)’র মধ্যে ওয়ান স্টপ সার্ভিস ইন্টিগ্রেশনের লক্ষ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর ২৯ আগস্ট সকালে জুম কনফারেন্স এর মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হয়। এই সমঝোতার আওতায় চিটাগাং চেম্বারের মেম্বারশীপ প্রদান, নবায়ন, সার্টিফিকেট অব অরিজিন ইস্যু করা ইত্যাদি সেবা এ পোর্টালের মাধ্যমে প্রদান করা হবে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ’র নির্বাহী চেয়ারম্যান মোঃ সিরাজুল ইসলাম, চিটাগাং চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম, বিডার নির্বাহী সদস্য মোহসিনা ইয়াসমিন, মহাপরিচালক নিখিল কুমার দাস, পরিচালক জীবন কৃষ্ণ সাহা রায় ও বিভিন্ন স্টেকহোল্ডারদের প্রতিনিধিরা বক্তব্য রাখেন। অন্যান্যদের মধ্যে চিটাগাং চেম্বার পরিচালকবৃন্দ জহিরুল ইসলাম চৌধুরী (আলমগীর), অঞ্জন শেখর দাশ, মোহাম্মদ আদনানুল ইসলাম ও তানভীর মোস্তফা চৌধুরীসহ অন্যান্য স্টেকহোল্ডারবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন। এ সময় চিটাগাং চেম্বারের পাশাপাশি বিডা একই উদ্দেশ্যে ফরেন ইনভেস্টরস চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি, ইস্টার্ন ব্যাংক লিঃ, স্ট্যান্ডার্ড চার্টার্ড ব্যাংক বাংলাদেশ এবং ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিঃ’র সাথেও সমঝোতা স্মারক সাক্ষর করে।

প্রধান অতিথি বিডা’র নির্বাহী চেয়ারম্যান মোঃ সিরাজুল ইসলাম আজকের এই দিনটি বিডা’র জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ উল্লেখ করে বলেন-বিডা প্রথমে চিন্তা করেছিল এই সংস্থা থেকে শুধুমাত্র সরকারি সংস্থার সেবা প্রদান করা হবে। পরবর্তীতে দেশী-বিদেশী বিনিয়োগকারীদের বৃহত্তর পরিসরে সেবা প্রদানের উদ্দেশ্য নিয়ে বেসরকারি খাতকেও সংযুক্ত করে এর পরিষেবার ব্যাপ্তি ঘটানো হয়। তিনি আগামী দিনে আরো বেসরকারি খাতের কিছু সেবা যুক্ত করে সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে বিডা কর্তৃক ব্যবসার পরিবেশ উন্নয়নে এর সমন্বিত প্ল্যাটফর্ম তথা ওয়ান স্টপ সার্ভিস (ওএসএস) কার্যক্রমটি উল্লেখযোগ্য ভূমিকা পালন করবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। বিডা’র নির্বাহী চেয়ারম্যান বিগত আড়াই বছরের আগে কাজ শুরু করে গত দেড় বছরে ২৪ হাজার অনুসন্ধানের জবাব দেয়া হয়েছে উল্লেখ করে বলেন-কিছু কিছু সংস্থা সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করলেও এখনও সেবা পুরোপুরি বাস্তবায়ন করতে পারিনি। তিনি এসব চ্যালেঞ্জ অতিক্রম করে ইন্টিগ্রেশনের কাজটি দ্রুত করার জন্য সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহবান জানিয়ে দেশের অর্থনীতির চলমান অগ্রগতির কোন প্রক্রিয়ায় যাতে গলদ না থাকে এ ব্যাপারে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন-২০০৮ সাল থেকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়’র সহযোগিতায় ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার কাজ শুরু করেন। তারই ধারাবাহিকতায় বিডা বিনিয়োগকারীদের জন্য সব ধরণের সেবা অনলাইনে প্রদানের লক্ষ্যে ওয়ান স্টপ সার্ভিস চালু করেছে যার জন্য আমরা ব্যবসায়ী সমাজের পক্ষ থেকে দীর্ঘদিন যাবৎ দাবী জানিয়ে আসছি। সরকার সারাদেশে ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল নির্মাণ করছে যার মধ্যে ৪টি চট্টগ্রামে অবস্থিত। এসব অঞ্চলে অবকাঠামো উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে হবে এবং গ্যাস, বিদ্যুৎ, পানি, পরিবেশ ছাড়পত্র ইত্যাদি ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীরা যেসব সমস্যার সম্মুখীন হয় তা সমাধানে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। বিডা অনলাইন পোর্টালের মাধ্যমে ওয়ান স্টপ সার্ভিস প্রদানে চেষ্টা করছে উল্লেখ করে তা সফল হবে বলে চেম্বার সভাপতি আশা প্রকাশ করেন।