সাত নাবিকের দেহে করোনা, ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনে জাহাজ

 নিজস্ব প্রতিবেদক |  সোমবার, আগস্ট ২৩, ২০২১ |  ৯:১২ অপরাহ্ণ
       

চট্টগ্রাম বন্দরে ডিএপি সার নিয়ে আসা ‘এমভি সেরিন জুনিপার’ নামের একটি জাহাজকে বহির্নোঙরে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন রাখা হয়েছে। চীন ফেরৎ বাহামার পাতাকাবাহী এ জাহাজের সাত নাবিকের দেহে করোনা পাওয়া যাওয়ায় বন্দর কতৃপক্ষ এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ১৯০ মিটার লম্বা, ১১ দশমিক ১ মিটার ড্রাফটের (জাহাজের পানির নিচের অংশ) জাহাজটি বর্তমানে বন্দরের বহির্নোঙরের আলফা অ্যাংকরেজ এলাকায় রয়েছে। সোমবার (২৩ আগস্ট) বিষয়টি নিশ্চিত করেন বন্দর স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মো. নুরুল আবছার।
তিনি জানান, বাহামার পতাকাবাহী জাহাজটিতে ২১ জন নাবিক রয়েছেন। এর মধ্যে করোনা টেস্টে সাত নাবিকের দেহে করোনা পাওয়া গেছে । আক্রান্তদেরকে জাহাজ থেকে নামিয়ে নগরীর সিভিল সার্জন নির্ধারিত হাসপাতাল অথবা কোন হোটেলে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হবে। এদিকে গত ১৯ আগস্ট থেকে জাহাজটির কোয়ারেন্টিন শুরু হয় এবং পণ্য খালাস বন্ধ ঘোষণা করা হয়।
এ বিষয়ে বন্দর সচিব ওমর ফারুক বলেন, চীনফেরত ওই জাহাজ থেকে পণ্য খালাসের বন্ধ রাখার ব্যাপারে এখনো সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হয় নি। সবার সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।
বন্দর সূত্রে জানা গেছে, বাহামার পতাকাবাহী জাহাজটিতে ২১ জন নাবিক রয়েছেন। এর মধ্যে ১৬ জন ফিলিপাইনের, ৩ জন ইউক্রেনের, ১ জন রাশিয়ার ও ১ জন রোমানিয়ার। এর মধ্যে ১২ জনের করোনা উপসর্গ দেখা দিয়েছে। সর্বশেষ সিঙ্গাপুর বন্দর হয়ে আসা জাহাজটিতে ২২ হাজার ২৩৪ টন ডিএপি সার রয়েছে। ১২ আগস্ট জাহাজটি বন্দরের বহির্নোঙরে পৌঁছে।